শুক্রবার ১৮ জানুয়ারী ২০১৯  ৫ মাঘ ১৪২৫, ১০ জুমাদিউল আউয়াল, ১৪৪০ Untitled Document

সদ্য সংবাদ

 চৌদ্দগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের  ডাঃ গোলাম কিবরিয়া টিপুর অপচিকিৎসা বন্ধের দাবি

Untitled Document
হালনাগাদ :২০১৯-০১-০৯, ১১:১৪

প্রতিনিধী

চৌদ্দগ্রাম প্রতিনিধি: কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে মেডিকেল অফিসার ডাঃ গোলাম কিবরিয়া টিপুর অপচিকিৎসা বন্ধ ও ২৭ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছে ভুক্তভোগী নার্গিস বেগমের পরিবার। গতকাল মঙ্গলবার সকালে স্থানীয় একটি হোটেলে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন নার্গিসের স্বামী ঘোলপাশা ইউনিয়নের যুগিরখিল গ্রামের প্রবাস ফেরত মোঃ খোরশেদ আলম। এ সময় নার্গিস বেগমসহ পরিবারের লোকজন উপস্থিত ছিলেন। 
খোরশেদ আলম লিখিত বক্তব্যে বলেন, তাঁর সহধর্মীনি মোসাঃ নার্গিস বেগম (২৮) জ্বর-কাশিতে আক্রান্ত হওয়ায় গত বছরের ১৪ অক্টোবর রবিবার সকালে চৌদ্দগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে যায়। সেখানে সরকারিভাবে টিকেট নিয়ে মেডিকেল অফিসার ডাঃ গোলাম কিবরিয়া টিপুকে দেখায়। ডাক্তার টিকেটে প্রথমে নিক্সন ২০মি. নামের একটি ইনজেকশনসহ কয়েকটি ওষুধ লিখে দেয়। হাসপাতালের জরুরী বিভাগে গিয়ে ইনজেকশকটি দেয়ার সাথে সাথে নার্গিস অজ্ঞান হয়ে পড়ে। তাৎক্ষনিক ডাঃ গোলাম কিবরিয়া টিপুকে বিষয়টি অবহিত করলে তিনি তার লেখা ইনজেকশনটির নাম কেটে দেন। এরপর আশঙ্কাজনক অবস্থা হওয়ায় নার্গিসকে কুমিল্লা মেডিকেল সেন্টারে নেয়া হয়। সেখানে এক রাত চিকিৎসার পর অবস্থার অবনতি দেখে-নার্গিসকে ঢাকার ইউনাইটেড হাসপাতালে নেয়া হয়। ইউনাইটেডের আইসিইউতে প্রফেসর ওমর ফারুকের তত্ত্বাবধানের ২০ দিন লাইফ সাপোর্টে থাকার পর তাঁর অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়। কিন্তু চিকিৎসা বাবদ প্রায় ২৭ লাখ টাকা ব্যয় হয়েছে। 
তিনি আরও বলেন, ডাঃ গোলাম কিবরিয়া টিপুর অপচিকিৎসায় যাতে নার্গিস বেগমের মতো আর কারও এমন অবস্থা না হয়। সেজন্য সমাজের মোড়লদের ন্যায় ডাঃ টিপুর অপচিকিৎসার বিরুদ্ধে লেখনির মাধ্যমে মানুষকে সচেতন করতে সাংবাদিকদের অনুরোধ জানাই। এছাড়া তিনি ডাঃ গোলাম কিবরিয়া টিপুর অপচিকিৎসার কারণে ব্যয় হওয়া ২৭ লাখ টাকা ক্ষতিপুরণ আদায়ে সরকার ও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সহযোগিতা কামনা করেন।
এ ব্যাপারে মঙ্গলবার দুপুরে ডাঃ গোলাম কিবরিয়া টিপু বলেন, ‘প্রতিদিন অনেক রোগী দেখি। কোন রোগীর অভিযোগ, তার ফাইলপত্র দেখা ছাড়া বলতে পারবো না। আর ইনজেকশনের নাম কেটে দেয়ার কথা ঠিক নয়’। 
 

January 2019

SunMonTueWedThuFriSat
1

2

3

4

5

6

7

8

9

10

11

12

13

14

15

16

17

18

19

20

21

22

23

24

25

26

27

28

29

30

31

সর্বাধিক পঠিত
জেলা সংবাদ
সংশ্লিষ্ট সংবাদ